বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৬:১৭ পূর্বাহ্ন
ঘোষনা :
জেকে টিভি'র জন্য জেলা ও উপজেলা প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে।  আগ্রহীরা ছবি ও যোগ্যতাসহ জীবন বৃত্তান্ত (সি.ভি)  পাঠান। ই-মেইল: jktv1401@gmail.com

কুষ্টিয়ায় মাদক মামলায় প্রথমবারের মতো ২ জনের মৃত্যুদন্ডের আদেশ -আদালতের।

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
  • ২২০ বার নিউজটি পড়া হয়েছে

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি :
কুষ্টিয়ার দৌলতপুর থানার একটি মাদক/হেরেইন মামলায় অভিযুক্ত দুইযুবকের মৃত্যুদন্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। সোমবার সকাল সাড়ে ১১টায় কুষ্টিয়া জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক অরুপ কুমার গোস্বামী আসামীদের উপস্থিতিতে ১৯৯০ সালের মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের ১৯(১) ধারার টেবিলের ১(খ) ক্রমিকে দোষী সাব্যস্ত করে জনাকীর্ণ আদালতে এই রায় ঘোষনা করেন। জেলার মাদক মামলায় প্রথমবারের মতো মৃত্যুদন্ডের আদেশ দিলেন আদালত।

দন্ডপ্রাপ্তরা হলেন- কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার মোহাম্মদপুর গ্রামের খেজমত মন্ডলের ছেলে মোঃ রুবেল(২৫) ও একই গ্রামের মৃত মসলেম মন্ডলের ছেলে ভাংগন মন্ডল(২৭)।

আদালত সূত্রে জানা যায়, ২০১৭ সালের ১৯ অক্টোবর দুপুর ২টায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রন অধিদপ্তর কুষ্টিয়ার সহকারী পরিচালক মিজানুর রহমানের নেতৃত্বে একটি আভিযানিক দল দৌলতপুর উপজেলার সীমান্ত এলাকায় পদ্মানদী তীরবর্তী মোহাম্মদপুর গ্রামে অভিযান পরিচালনাকালে আসামী মোঃ রুবেল ও ভাংগন মন্ডলের দেহ তল্লাশী করে ৮টি পলিথিন প্যাকেটজাত ৮০০ গ্রাম হেরোইনসহ আটক করেন। এই ঘটনায় জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর কুষ্টিয়ার পরিদর্শক তারেক মাসুদ বাদী হয়ে ৪০জনের বিরুদ্ধে দৌলতপুর থানায় মামলা করেন। মামলা নং- ৪৫, তারিখ-১৯/১০/২০১৭ইং। মামলাটি তদন্ত শেষে ২০১৮ সালের ২৭ জানুয়ারী, ১৯৯০ সালের মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের ১৯(১) ধারার টেবিলের ১(খ) অভিযোগ এনে ১০জনের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশীট দাখিল করেন পুলিশ।

মামলার রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবি ও কুষ্টিয়া জজ কোর্টের পিপি অ্যাড. অনুপ কুমার নন্দী এই রায়ের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, দীর্ঘ স্বাক্ষ্য শুনানি শেষে আসামীদের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ সন্দেহাতীত প্রমানিত হওয়ায় ২জনকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদন্ড ও অভিযোগ প্রমানিত না হওয়ায় ৮জনকে বেকসুর খালাশ দেন। মৃত্যু দন্ডপ্রাপ্ত আসামীদ্বয় এ রায়ের বিরুদ্ধে আগামী ৭দিনের মধ্যে উচ্চ আদালতে আপীল করতে পারবেন বলে জানালেন সরকারী কৌশুলী। মামলাটির আসামী পক্ষের আইনজীবি ছিলেন এ্যাড. মীর আশরাফুল ইসলাম ও এ্যাড. তরুন সরকার।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর ....
© All rights reserved © jknewstv.com
Developed By Rinku
themes254654365664
error: Content is protected !!