শুক্রবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৪:১১ পূর্বাহ্ন
ঘোষনা :
জেকে টিভি'র জন্য জেলা ও উপজেলা প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে।  আগ্রহীরা ছবি ও যোগ্যতাসহ জীবন বৃত্তান্ত (সি.ভি)  পাঠান। ই-মেইল: jktv1401@gmail.com

ভেড়ামারায় এক গ্রামেই ৩০ জন ডেঙ্গু রোগী শনাক্ত

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
  • ২০৯ বার নিউজটি পড়া হয়েছে

কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা উপজেলার বাহাদুরপুর ইউনিয়নের নতুন মসলেমপুর গ্রামেই ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত ৩০ রোগীকে শনাক্ত করা হয়েছে। অবস্থা এতটাই ভয়াবহ রুপ নিয়েছে যে মসলেমপুর নতুন গ্রামে কারো জ্বর দেখা দিলেই সাধারন মানুষের ধারনা যে তার ডেঙ্গু হয়েছে। মসলেসপুর গ্রাম থেকে ডেঙ্গু পরীক্ষা করতে শহরে যাওয়া শতকরা ৯০ ভাগ মানুষেরই ডেঙ্গু শনাক্ত হয়েছে।
ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগীরা হলেন, ফারুক হোসেনের স্ত্রী শিউলী, এমদাদুল হকের স্ত্রী আফরোজা, নেহেরুলের পূত্র সুমন, আলীমের স্ত্রী রীমা, মহাবুলের স্ত্রী রাশেদা, আরশেদের পূত্র জীবন, মৃত আবুলের পূত্র বাবু ও বাবুর স্ত্রী, কবীরের স্ত্রী দিপা, ছিদ্দিকের স্ত্রী নাহার, মৃত কলিম উদ্দীনের পূত্র শরিয়ত, আসহাবের স্ত্রী বানু, দুলালের পূত্র রুমন, লিটনের স্ত্রী শিউলী, মিলনের স্ত্রী, মোজাম্মেলের কন্যা ববি, আফতাব কারিগর, মৃত তোবারক খন্দকারের পূত্র লিটন, ভোলা’র পূত্র আশিক, মৃত আজিজলের স্ত্রী রোকেয়া, মৃত রহিমের পূত্র এনামূল, এনামূলের স্ত্রী দুখিনী, তাহাজদ্দী’র পূত্র রিকেট, তরিকুলের পূত্র রাতুল, মনি’র কন্যা তিহাম, সাত্তারের স্ত্রী রিনা, সাইদুল মাষ্টারের কন্যা জান্নাতুল, মৃত বানেজ কারিগরের পূত্র মহাবুল, আদা কারিগরের কন্যা বৃষ্টি, মৃত সুকচাদের পূত্র রবিউল। তাদেরকে স্থানীয় হাসপাতাল, কুষ্টিয়া সদর হাসপাতাল ও রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সহ বিভিন্ন বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। মসলেমপুর গ্রামের জনগন বর্তমানে আতঙ্কের মধ্যে বসবাস করছে।
ভেড়ামারা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. নুরুল আমিন বলেন, ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগীদের মধ্যে সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছেড়েছেন অনেকেই। ডেঙ্গু প্রতিরোধে তিনি এ সময় মশার কামড় থেকে দূরে থাকাসহ মশা যাতে জন্মাতে না পারে সেজন্য বাড়ির আশপাশ পরিষ্কার করা ও পরিত্যক্ত জিনিসপত্র বোতল, নারিকেলের খোসা, টায়ারসহ অন্যান্য জিনিসপত্র পরিষ্কার রাখা এবং ঘুমানোর আগে অবশ্যই মশারি ব্যবহার করার পরামর্শ দেন। তিনি ডেঙ্গু আক্রান্তদের পানি ও পানি জাতীয় খাদ্য (ডাব, শরবত, পেঁপে) বেশি খাবার পরামর্শ দেন।
এলাকায় জনগনের মধ্যে ব্যপক সচেতনা তৈরী ও সমন্বিত উদ্যোগ গ্রহনের মাধ্যমে চলমান সমস্যা সমাধানের পরামর্শ দেন বাহাদুরপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আশিকুর রহমান ছবি।
ভেড়ামারা উপজেলা নির্বাহী অফিসার সোহেল মারুফ জানান, ডেঙ্গু প্রতিরোধে গোটা শহর পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন, মশক নিধনের জন্য ঔষুধ ছিটানো, গণ সচেতনতা বাড়ানোর জন্য শহর জুড়ে মাইকিং ও লিফলেট বিতরণ করা হচ্ছে। পরিষ্কার-পরিছন্নতা ও মশক নিধনের ঔষধ ছিটানোর কাজ অব্যাহত রাখা হয়েছে। এডিস মশার বংশ-বিস্তার ঠেকাতে কার্যকরী পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে। মসলেমপুর গ্রাম ও আশপাশের এলাকায় ডেঙ্গু প্রতিরোধে ফগার মেশিন দিয়ে এডিস মশা ধ্বংসে অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে।
খবর পেয়ে রববিার বিকালে ভেড়ামারা প্রেসক্লাবের সাংবাদিকবৃন্দ সরজমিনে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে বাড়ি বাড়ি গিয়ে তথ্য সংগ্রহ করে এবং ওই এলাকায় ডেঙ্গু প্রতিরোধ বিষয়ক সচেতনতামূলক ক্যাম্পেইন করে। উক্ত ক্যাম্পেইনে কুষ্টিয়ার মুখ পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক ডাঃ মোঃ আমিরুল ইসলাম মান্নান, ভেড়ামারা প্রেসক্লাবের যুগ্ন আহবায়ক ইসমাইল হোসেন বাবু, শাহ জামাল, মোঃ আবু ওবাইদা-আল-মাহাদী, সাংবাদিক ফারুক হোসেন, নোমান জহির রাজা, মাহামুদুল্লাহ সোহেল সহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর ....
© All rights reserved © jknewstv.com
Developed By Rinku
themes254654365664
error: Content is protected !!