মঙ্গলবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৪:১০ পূর্বাহ্ন
ঘোষনা :
জেকে টিভি'র জন্য জেলা ও উপজেলা প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে।  আগ্রহীরা ছবি ও যোগ্যতাসহ জীবন বৃত্তান্ত (সি.ভি)  পাঠান। ই-মেইল: jktv1401@gmail.com

দুর্যোগকালীন ইমাম ও মুয়াজ্জিন সহায়তা কমিটির উদ্যোগে বৃদ্ধা আতরজানের বাড়ি পরিদর্শন

দৌলতপুর প্রতিনিধি :
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ২৮ মে, ২০২০
  • ৫৯ বার নিউজটি পড়া হয়েছে

র্যোগকালীন ইমাম ও মুয়াজ্জিন সহায়তা কমিটির উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্যদের ও আহবায়ক ইঞ্জিনিয়ার শাকীল খানের নির্দেশনায় ৯০ বছরের বৃদ্ধা আতরজানের বাড়ি পরিদর্শন করেন কমিটির সদস্যরা।

কুষ্টিয়া দৌলতপুরে বৃদ্ধা আতরজানের কার্ড ফিরিয়ে দেওয়া ও নিরাপদ আশ্রয়ের ব্যবস্থা গ্রহনের উদ্যোগ গ্রহন করে ইঞ্জিনিয়ার শাকীল খানের নির্দেশে ৮ সদস্য প্রতিনিধির দল আতরজানের বাড়ি পরিদর্শন করেন।

গত বুধবার (২৮ মে) রিজভী হাসান মাহমুদ হিরন, আহবায়ক; লেকচারার শিক্ষক তানজিম হাসান শাহীন কে যুগ্ম আহবায়ক করে ৮ সদস্য করে একটি সরেজমিন পরিদর্শন কমিটি গঠন করা হয়, সরেজমিন পরিদর্শন কমিটি আজ স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানকে সাথে নিয়ে বৃদ্ধা আতরজানের বাড়ি পরিদর্শন করেন।

ইঞ্জিনিয়ার শাকীল খান বলেন,
গত ২৩ মে, ইত্তেফাক এ “জীবিত আতরজানকে মৃত দেখিয়ে চালের তালিকা থেকে নাম কাটলেন ইউপি সদস্য ” এমন একটি শিরনামে রিপোর্টে প্রকাশিত হয়।আর তা আমাদের দুর্যোগকালীন ইমাম ও মুয়াজ্জিন সহায়তা কমিটির ,দৌলতপুর, কুষ্টিয়া এর দৃষ্টিগোচর হলে আমি ব্যক্তিগত তহবিল থেকে বৃদ্ধার জন্য ঈদের আগে খাদ্য ও ঈদ সামগ্রী ও নগদ অর্থ প্রতিনিধির মাধ্যমে সহায়তা পাঠায় এবং বৃদ্ধার কার্ডটি পুনরুদ্ধার করার উদ্যোগনি । পরবর্তীতে কমিটির উপদেষ্টা মোঃ রোকনুজ্জামান
ভাইয়ের দৃষ্টিগোচর হলে আমাদের কমিটির মাধ্যমে ফান্ড গঠন করে বৃদ্ধার জরাজীর্ণ ঘরটি মেরামত করা, একটি সেমিপাকা ঘর নির্মান করে দেওয়ার প্রস্তাবনা দেন।

এ ছাড়াও ইঞ্জিনিয়ার শাকীল খান আরো বলেন, ৯০ বছরের বৃদ্ধা আতরজান। চোখে দেখতে পান না। পরিবারের সদস্য বলতে বিধবা এক মেয়ে, অন্য ২ মেয়ে মারা গেছে । কিছুদিন আগে ইত্তেফাকের রিপোর্ট এর দেখা যায় বৃদ্ধাকে মৃত দেখিয়ে তার ১০ টাকা কেজি চালের কার্ডটিও বাতিল করা হয়েছে। আমরা তার কার্ডটি পুনরায় চালু করার চেষ্টা করছি। সেই সাথে বৃদ্ধা আতরজানের ঘরটি সংস্কার করতে চায়, করতে চায় তার নিরাপদ আশ্রয় । আপনাদের সকলের সহযোগিতা কামনা করছি। আপনার সহযোগিতায় ৯০ বছরের বৃদ্ধা পেতে পারে নিরাপদ আশ্রয়।

এ ছাড়াও ইউপি চেয়ারম্যান দ্রুত সময়ের মধ্যে বৃদ্ধার আগের কার্ডটি পুনরায় ফিরিয়ে দেওয়া সহ, নতুন একটি বয়স্ক ভাতার কার্ড ও করে দিবেন মর্মে অবহিত করেছেন, পাশাপাশি আমরা বৃদ্ধার সেমিপাকা ঘর নির্মানেও তিনি সহযোগিতা করবেন জানিয়েছেন।

এ ছাড়া আরো উপস্থিত ছিলেন, দৌলতপুর সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন মহি, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সম্পাদক রিজভী হাসান মাহমুদ হিরন, দৌলতপুর ডিগ্রি কলেজের লেকচারার শিক্ষক তানজিম হাসান শাহীন, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা হেলাল আহমেদ রিমন মুন্না নাহারুল সহ প্রমুখ।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর ....
© All rights reserved © jknewstv.com
Developed By Rinku
themes254654365664
error: Content is protected !!